শুক্রবার, ০৭ মে ২০২১, ০৬:১০ পূর্বাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
খালেদা জিয়াকে যে দেশে নেওয়ার প্রস্তুতি বিস্ফোরণে গুরুতর আহত মালদ্বীপের সাবেক প্রেসিডেন্ট ফয়জী’র একাধিক নারীর সংগে অনৈতিক সম্পর্ক ছিলো শেষ কার্যদিবসে ডিএসই-তে হাজার কোটি টাকা লেনদেন এখন জনগণের পাশে থাকাই আওয়ামী লীগের রাজনীতি : ড. হাছান মাহমুদ জাতীয় অধ্যাপক হিসেবে নিয়োগ পেলেন তিনজন করোনা টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিলেন রাষ্ট্রপতি ভারত-যুক্তরাষ্ট্র থেকে টিকা চাওয়া হয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী ৯০০ টন অক্সিজেন মজুদ আছে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী সরকার খালেদা জিয়াকে বিদেশে যাওয়ার অনুমতি দেবে, আশা মির্জা ফখরুলের যেখানে আছেন সেখানেই ঈদ উদযাপন করুন : প্রধানমন্ত্রী করোনায় ৪১ জনের মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ১,৮২২ নতুন পাসপোর্টের জন্য আবেদন খালেদা জিয়ার টিকা নিয়ে বাণিজ্য গ্রহণযোগ্য নয়: জিএম কাদের আগামীকাল জুমাতুল বিদা নামাজ শেষে সারাদেশে বিশেষ দোয়া দোষারোপের রাজনীতি পরিহার করতে বিএনপিকে আহ্বান সেতুমন্ত্রীর করোনায় দিন মজুরকে খাওয়াবেন সানি লিওন ব্রাজিলে গোলাগুলিতে পুলিশসহ নিহত ২৫ জি-সেভেনের যৌথ বিবৃতি অভিযোগ ভিত্তিহীন: চীন দক্ষভাবে করোনা মোকাবেলা করা হচ্ছে : হানিফ

না ফেরার দেশে চন্দ্রজয়ী মাইকেল কলিন্স

না ফেরার দেশে চন্দ্রজয়ী মাইকেল কলিন্স

১৯৬৯ সালে চাঁদে সফল অভিযানের অন্যতম মহাকাশচারী মাইকেল কলিন্স মারা গেছেন। মাইকেল কলিন্স মানবেতিহাসে প্রথমবার চাঁদে পা রাখা দলের সদস্য ছিলেন। তার বয়স হয়েছিল ৯০ বছর। তিনি দীর্ঘদিন ক্যানসারের সঙ্গে লড়ছিলেন। বুধবার পরিবারেরর সদস্যদের সান্নিধ্যে তার মৃত্যু হয়।

টুইটারে মাইকেল কলিন্সের অফিশিয়াল অ্যাকাউন্টে এক বিবৃতিতে কলিন্সের পরিবার বলেছে, ‘মাইক সব সময়ই নম্রতা আর কমনীয়তার সঙ্গে জীবনের চ্যালেঞ্জগুলো গ্রহণ করেছেন। তিনি একইভাবে তার জীবনের শেষ চ্যালেঞ্জটিও গ্রহণ করেছেন।’

যুক্তরাষ্ট্রের মহাকাশ গবেষণা সংস্থা নাসার অ্যাপোলো-১১ অভিযানের অর্ধশত বছর পূর্ণ হয়েছে ২০১৯ সালে। তার দুই বছর না যেতেই চন্দ্রজয়ের সেই অভিযানের অন্যতম সদস্য মাইকেল কলিন্স না ফেরার দেশে পাড়ি জমান।

১৯৬৯ সালে চাঁদের বুকে প্রথম পা রেখেছিল নাসার অ্যাপোলো ১১। এর আগ পর্যন্ত চাঁদ ছিল মানুষের কাছে শুধু কল্পনার জগত। প্রায় চার লাখ প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞের অক্লান্ত পরিশ্রমে কল্পনার চাঁদ বাস্তব হয়ে ধরা দেয় মানবসভ্যতার কাছে।

মাইকেল কলিন্স ছিলেন সেই চন্দ্রাভিযানের কমান্ড মডিউল পাইলট। অভিযানে নিল আর্মস্ট্রং এবং এডউইন অলড্রিনের চাঁদের বুকে পা রাখেন। তবে কলিন্স চাদেঁ নামেননি। এ কারণে তাকে ‘বিস্মৃত নভোচারী’ বলা হয়।

অভিযানের গুরুত্বপূর্ণ মুহূর্তে ঘটেছিল দুটি যান্ত্রিক গোলযোগ। একটি ছিল বেতার তরঙ্গে পৃথিবীর সঙ্গে যোগাযোগ হারিয়ে ফেলেছিলেন নিল আর এডুইন। দ্বীতিয়টি ছিল জ্বালানি কমে এসেছিল। যদিও এ দুই প্রতিকূলতা কাটিয়ে ২০ জুলাই সফলভাবেই দুই নভোচারী পা রাখেন চাঁদে। এরপর ২৫ জুলাই তারা পৃথিবীতে ফিরে আসেন।

তার মৃত্যুতে শোক জানিয়ে নাসা একটি বিবৃতি দিয়েছে।

নাসার ওয়েবসাইটে প্রকাশিত ওই বিবৃতিতে বলা হয়, জাতি আজ একজন সত্যিকারের অগ্রদূত ও প্রবক্তাকে হারিয়েছে। অ্যাপোলো ১১ অভিযানের কমান্ড মডিউল চালক মাইকেল কলিন্সকে কেউ কেউ ‘ইতিহাসের সবচেয়ে একাকী মানুষ’ বলতেন। দুই সঙ্গীকে নিয়ে সেই অভিযানে তিনি প্রথমবারের মতো চাঁদে অবতরণ করেছিলেন। এটি আমাদের জাতির জন্য একটি মাইলফলক অর্জন ছিল।

মাইকেল কলিন্স ১৯৩০ সালে ইতালির রোমে জন্মগ্রহণ করেন। তার বাবা ছিলেন মার্কিন সেনাবাহিনীর একজন মেজর জেনারেল। তিনি ওয়েস্ট পয়েন্টের মার্কিন সামরিক একাডেমি থেকে স্নাতক শেষে বিমান বাহিনীতে যোগ দেন। ১৯৬৩ সালে নাসা তাকে মহাকাশচারী হিসেবে বেছে নিয়েছিল। তার প্রথম মহাকাশ যাত্রা ছিল জেমিনি-১০ অভিযান।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

করোনার সর্বশেষ খবর

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
৭৬৯,১৬০
সুস্থ
৭০২,১৬৩
মৃত্যু
১১,৭৯৬
সূত্র: আইইডিসিআর

বিশ্বে

আক্রান্ত
১৫৪,৯৭২,১১২
সুস্থ
৯১,৫৯৯,৫০২
মৃত্যু
৩,২৩৯,৪২৪
%d bloggers like this: