বৃহস্পতিবার, ২২ অক্টোবর ২০২০, ০৩:২৬ পূর্বাহ্ন

প্রতি ১৬ মিনিটে ১ নারী ধর্ষণ হয় যে দেশে!

ধর্ষণ-নির্যাতন বন্ধে আজও বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ

ভারতের উত্তর প্রদেশে একের পর এক ধর্ষণের ঘটনায় গর্জে উঠেছে গোটা দেশ। হাথরাসের পর থেমে নেই ধর্ষণের ঘটনা। পরপরা বলরামপুর, বুলন্দশহর এবং ভাদোহী এলাকায় ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। তাতে প্রশ্ন উঠে গেছে যোগীর রাজ্যে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে। এবার তার মধ্যে উঠে এল এক চাঞ্চল্যকর রির্পোট।

দ্য ন্যাশনাল ক্রাইম রেকর্ড ব্যুরো একটি রির্পোট পেশ করেছে। সেই রির্পোট অনুযায়ী ভারতে প্রতি ১৬ মিনিটে অন্তত একজন মেয়ে ধর্ষিত হয়। যা রীতিমত চাঞ্চল্যকর। প্রতি ঘণ্টায় একটি মেয়েকে পণের জন্য খুন হতে হয়। পুরো দেশ যখন উত্তাল, তখন এই রির্পোট দেশবাসীর কাছে ক্ষোভের আগুনে ঘৃতাহুতি দেবে বলে মনে করা হচ্ছে। একইসঙ্গে প্রশ্ন উঠে যাচ্ছে, বেটি বাঁচাও, বেটি পড়াও, উদ্যোগ নিয়ে।’

এনসিবির রির্পোট জানাচ্ছে, প্রতি চার মিনিটি একটি মেয়ে তার শ্বশুরালয়ে স্বামী অথবা অন্য কারো হাতে লাঞ্ছিত হয়। প্রতি দু দিনে এক জন মেয়ের ওপর অ্যাসিড আক্রমণ হয়। প্রতি ৩০ ঘণ্টায় ভারতে অন্তত একজন মেয়ে গণ ধর্ষণের শিকার হয়। আবার প্রতি দু ঘণ্টায় অন্তত একটি মেয়েকে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়। প্রতি ৬ মিনিটে একটি মেয়েকে যৌন হেনস্তা করার চেষ্টা করা হয়।

এ রির্পোটে নারী পাচার নিয়ে বলা হয়েছে, ভারতে প্রতি চার ঘণ্টায় অন্তত একটি মেয়ে পাচার হয়ে যায়। সুতরাং গোটা ভারতে নারী সুরক্ষা এখন প্রশ্নের মুখে। তার মধ্যে উত্তরপ্রদেশ নারী নির্যাতনে শীর্ষস্থান অধিকার করেছে।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালে ভারতে প্রতিদিন গড়ে ৮৭টি করে ধর্ষণের মামলা রেকর্ড হয়েছে। যেখানে পুরো দেশে নারীদের ওপর নথিভুক্ত অপরাধের সংখ্যা ছিল ৪ লাখ ৫ হাজার ৮৬১টি। এদিকে ২০১৮ সালের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, নারীদের বিরুদ্ধে অপরাধের ঘটনা ২০১৯ সালে ৭ শতাংশের বেশি বৃদ্ধি পেয়েছে।

অন্যদিকে ২০১৮ সালে ভারতে ধর্ষণের মামলার সংখ্যা ছিল ৩৩ হাজার ৩৫৬। আর ২০১৭ সালে নথিভুক্ত ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছিল ৩২ হাজার ৫৫৯টি। জাতীয় অপরাধ রেকর্ডস ব্যুরোর এই পরিসংখ্যানে পরিষ্কার যে, মেয়েদের বিরুদ্ধে অপরাধের ঘটনা উল্লেখযোগ্য হারে বাড়লেও ভারতে ধর্ষণের মামলা তার আগের দু’টি বছরের তুলনায় কিছুটা কমেছে।

২০১৯ সালে উল্লেখিত মামলার অধিকাংশই নথিভুক্ত হয়েছে ভারতীয় দণ্ডবিধির (আইপিসি) আওতায়। এর মধ্যে শ্বশুরবাড়িতে বধূ-নির্যাতনের ঘটনা ঘটেছে ৩০.৯ শতাংশ। অন্যান্য ক্ষেত্রে নারীদের উপর নির্যাতনের ঘটনা ঘটেছে ২১.৮ শতাংশ। নারী অপহরণের ঘটনা ১৭.৯ শতাংশ। ২০১৯ সালে প্রতি ১ লাখ নারীর ওপর অপরাধের হার ৬২.৪ শতাংশ। ২০১৮ সালে ছিল ৫৮.৮ শতাংশ।

শুধু নারীদের উপরই নয়, এনসিআরবির ‌‌‘ক্রাইমস ইন ইন্ডিয়া-২০১৯’ রিপোর্ট অনুযায়ী, শিশুদের বিরুদ্ধে অপরাধের ঘটনাও ভারতে বেড়েছে। ২০১৯ সালে শিশুদের বিরুদ্ধে ১.৪৮ লাখ অপরাধের মামলা নথিভুক্ত হয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

করোনার সর্বশেষ খবর

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
সুস্থ
মৃত্যু
সূত্র: আইইডিসিআর

বিশ্বে

আক্রান্ত
৪০,৭৭৬,৬৭১
সুস্থ
২৭,৯০২,৩৪৭
মৃত্যু
১,১২৪,৬৬৯
%d bloggers like this: